মোহাম্মাদ কাসীম বলেন, এই স্বপ্নটি ২০ অক্টোবর ২০১৯ এ দেখেছিলাম। আমি এই স্বপ্নে পাকিস্তানের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে দেখেছিলাম, তখন আমি মনে মনে বলতে ছিলাম এটা সেই সময় নয় তো ? যে সময় রাজনৈতিক কিছু লোক দেশে অরাজকতা ছড়িয়ে দিতে চায়, তখন সেনাপ্রধান তাদেরকে নিষেধ করেন এটি করতে এবং বলেন যে, দেশের অবস্থা আগে থেকেই খারাপ, আপনারা এটি করলে দেশের অবস্থা আরো বেশি খারাপ হয়ে যাবে, কিন্তু ঐ লোকগুলো সেনাপ্রধানের কথামান্য করেনি। আমি এ বিষয়গুলো আগে থেকে আমার স্বপ্নে দেখেছি, তারপর আমি নিজেকে বলতেছিলাম এখন ইমরান খান প্রধানমন্ত্রী সে তো দেশকে ভালোবাসে সে কিভাবে এই বিশৃঙ্খলাকে সামলাবে? তারপর আমি দেখেছি সরকার এবং সরকারি দলের সমর্থকরা তাদের বিরুদ্ধে বিবৃতি দিতে থাকেন এবং তাদেরকে থামানোর জন্য ধমক দিয়ে থাকেন। তারপর আমি বলেছিলাম যে, সরকারি দল নিজেরাই তাদেরকে উস্কানি দিয়েছিলেন এবং ইমরান খানও এই উস্কানির অংশ হয়ে যাবেন। তখন আমি বলতেছিলাম এই লোক গুলোতো প্রতিবাদ করে চলে যাবেন দেশের বেশি ক্ষতিহবে না। যাইহোক লোকগুলোর এই বিশৃংখলার পদক্ষেপটি দেশের সাধারণ মানুষের জন্য সহানুভূতির কারণ হতে পারে, এবং দেশের অবস্থা আরো বেশি খারাপ হয়ে যাবে। ইমরান খানের উচিত দেশের এই বিশৃঙ্খলাকে থামানো বিস্তৃত হওয়া থেকে, ইমরান খান দেশের প্রধানমন্ত্রী এবং তার উচিত বুদ্ধিমানের মতো কাজ করে এই বিশৃংখলা কমানো এবং বাড়তে না দেওয়া।