মোহাম্মাদ কাসীম বলেন, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৫ সালে আমি একটি স্বপ্ন দেখেছিলাম। আমি দেখি যে, সেখানে সর্বত্র অন্ধকারাচ্ছন্ন। আমাদের সবকিছু আছে বিদ্যুৎ ছাড়া। বাতি এবং টিউবলাইটগুলো আলোকিত করার জন্য এবং প্রত্যেকেই বিদ্যুতের সন্ধান করতেছে। তারপর আমি দেখি যে, আল্লাহ্‌ আমাকে বিদ্যুৎ দান করেন তার দয়ার দ্বারা। তারপর আমি আলেম-উলামা, মুফতি এবং মুসলিম নেতাদের কাছে যাই। আমি তাদের বলি যে, আমার কাছে বিদ্যুৎ আছে এবং আমি ইহা দিয়ে লোকদের বাড়িগুলোকে আলোকিত করতে পারি। কিন্তু তারা আমাকে বিশ্বাস করেনা যে, আমার কাছে বিদ্যুৎ আছে। তারা বলে যে, আমি মিথ্যাবাদী। আলেম-উলামা, মুফতি এবং মুসলিম নেতাগণ শুধুমাত্র আমার সাথে অসম্মত যে আমার কাছে বিদ্যুৎ নেই। কিন্তু তারা অতিরিক্ত কোনোকিছুই বলেন না আমাকে। তারা আমাকে থামায়ও না আর আমাকে তারা নিষেধও করেন না এসব অন্যদেরকে বলা থেকে। তারা বলেন, সে যা চায় তাই করুক এর জন্য সে নিছক তার সময় নষ্ট করতেছে, তার কাছে বিদ্যুৎ নেই। কিন্তু আল্লাহ্‌ আমাকে বলেন, কাসীম, চিন্তা করোনা, আমি তোমার সাথে আছি, কেউ তোমাকে থামাতে পারবে না এবং আমি তোমাকে সাহায্য করব। তারপর আল্লাহ্‌ আমাকে সাহায্য করেন এবং সাধারণ মুসলিমরা আমার কথা বিশ্বাস করা শুরু করে। তারপর এই সংবাদ সারাবিশ্বে ছড়িয়ে পড়ে। তারপর প্রত্যেকেই আমাকে বিশ্বাস করেন। তারা আমাকে সবকিছু আলোকিত করার জন্য বলেন বিদ্যুৎ দ্বারা, আল্লাহ্‌ যা আমাকে দিয়েছিলেন। তারপর আল্লাহ্‌র দয়া দ্বারা আমি আলো ছড়িয়ে দেই। তারপর আলেম-উলামা, মুফতি এবং মুসলিম নেতাগণ বলেন, হায়, হায়! আমাদের উচিত ছিল তাকে বিশ্বাস করা। স্বপ্ন এখানেই শেষ হয়।